শিব চতুর্দশী – শিব রাত্রির তাৎপর্য

1357

শিব চতুর্দশী উপলক্ষে শিব নিয়ে অনেক তথ্য আপনাদের দিয়েছি এই ধারাবাহিক লেখায়। শিব সংক্রান্ত অনেক পৌরাণিক ঘটনা নিয়ে আলোচনা করেছি। আজ জানাবো শিব রাত্রির তাৎপর্য। জানাবো শাস্ত্র মতে শিব রাত্রি পালন করলে কি ফল পাওয়া যায়।শিব চতুর্দশী তিথিতে প্রকট হয়েছিলো আদি শিব যে শিব লিঙ্গের আদি ও অন্ত খুঁজতে ব্যার্থ হয়ে ছিলেন স্বয়ং ব্রম্হা ও বিষ্ণু এবিষয়ে এই শিব লিঙ্গের মধ্যে উপস্থিত রয়েছে এ জগতের অনন্ত শক্তি। আর এত মাত্রায় শক্তি যেখানে মজুত রয়েছে তাকে ঠান্ডা রাখতে না পারলে সংসারের বিপদ অনিবার্য আর ঠিক এই কারণেই শিব লিঙ্গের মাথায় জল ঢালার প্রথা শুরু হয়। তিথি অনুসারে প্রত্যেক বছর ফাল্গুনমাসের কৃষ্ণপক্ষের চতুর্দশীতে শিবরাত্রি উদযাপন করা হয়।বিশ্বাস করা হয়, শিবরাত্রির রাতই মহাদেবের প্রিয় রাত।শিবরাত্রির দিনে শিব পার্বতীকে বিয়ে করেছিলেন।শুধু তাই নয় শিবরাত্রির দিনেই মহাদেব তাণ্ডব নৃত্য করেছিলেন। অবিবাহিত মেয়েদের জন্য এটাই সবচেয়ে পূণ্যের রাত।কথিত আছে যাঁরা ভগবান শিবের মতো স্বামী চান, তাঁরা এই দিন ব্রত করেন।শিবরাত্রির দিনের এই ব্রত শুধু অবিবাহিত মেয়েরাই নন, বিবাহিত মেয়েরা এমনকি ছেলেরাও এই ব্রত করতে পারেন।যারা নানা বিধ সমস্যায় জর্জরিত তারা সর্ব ক্ষেত্রে সাফল্য এবং সমৃদ্ধি চেয়েও এই ব্রত করতে পারেন।শিব সব রকম অশুভ শক্তিকে নাশ করেন এবং তিনি পরম দয়ালু ও অতি অল্পেই সন্তুষ্ট।শিবরাত্রির ব্রত করলে অশুভ শক্তি থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।শিব রাত্রি তিথিতে দেবাদিদেব আদি লিঙ্গের রূপ ধারণ করেছিলেন তাই সেই সময়ই শিবরাত্রি ব্রত উদযাপনের মাধ্যমে সহজেই তার কৃপা লাভ করা যায়।জগৎ কে রক্ষা করতে সমুদ্র মন্থনে বিষ পাণ করেছিলেন মহাদেব।যারা সারারাত জেগে শিবরাত্রি ব্রত পালন করবেন তাদের জীবনের সব বিষ অর্থাৎ সব দুঃখ কষ্ট হরণ করবেন মহাদেব।মহাশিবরাত্রির ব্রত করলে রজঃ গুণ এবং তমোঃ গুণগুলি নিয়ন্ত্রণে আসে। শিব রাত্রি যুক্ত অমাবস্যা তিথি গ্রহ জন্মছকে থাকা অশুভ গ্রহের দোষ খন্ডনের জন্য প্রশস্ত তিথি।যারা রুদ্রাক্ষ বা বিশেষ কোনো প্রতিকার ধারণ করতে চান অথবা গৃহে বিশেষ কোনো যন্ত্র স্থাপন করতে চান তারাও শিব রাত্রিকে কাজে লাগাতে পারেন।শিব রাত্রি ব্রত পালনের অন্য সব নিয়ম পালন করা যদি সম্ভব না হয় শুধু শিব মন্ত্র ‘ওম নমঃ শিবায়’ স্তব করেও মহাদেবের কৃপা লাভ করতে পারেন।আগামী ১৯ ফেব্রুয়ারী পড়েছে এবছরের শিব চতুর্দশী তিথি। যারা শাস্ত্র মতে গ্রহের প্রতিকার চান যোগাযোগ করতে পারেন।ফিরে আসবো পরের পর্বে। মহাদেবকে নিয়ে এখনো অনেক কথা বলার বাকি আছে।সব বলবো আগামী পর্ব গুলিতে। পড়তে থাকুন।ভালো থাকুন। ধন্যবাদ।