কালী তীর্থ – কীর্তিশ্বরী মন্দির

293

বলা হয় বাংলার ছয়টি জাগ্রত কালী মন্দির, যেখানে গেলে সকল মনের বাসনা পূরণ হবেই।তার মধ্যে অন্যতম কালি তীর্থ কীর্তিশ্বরী মন্দির|কীর্তিশ্বরী মন্দির মুর্শিদাবাদে অবস্থিত যা কিছু প্রাচীন গ্রন্থ অনুসারে ৫১ পীঠের অন্যতম|দেবী সতীর মুকুট এই স্থানে স্থানে পড়েছিলে বলে মনে করা হয়|স্বাভাবিক ভাবেই পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদ জেলায় অবস্থিত এই মন্দিরটি এই জেলার অন্যতম প্রাচীন কালী মন্দির।একসময় এই মন্দিরের পুরাতন কাঠামো বর্তমানে নষ্ট হয়ে গেলেও গেলেও নতুন আঙ্গিকে এই মন্দির গড়ে তোলেন ঊনিশ শতকে রাজা দর্প নারায়ণ।কোনো কোনো গ্রন্থে প্রাচীন এই মন্দিরটি মুক্তেশ্বরী মন্দির নামেও পরিচিত। এই মন্দিরে বিশেষ কোন বিগ্রহের পূজা করা হয় না একটি কালো পাথরকেই বিগ্রহ রূপে পূজা করা হয়ে থাকে|কীর্তিশ্বরী মন্দির অত্যন্ত জাগ্রত মন্দির বলে প্রসিদ্ধ সারা বাংলা জুড়ে এবং প্রায় সারা বছর জুড়েই ধৰ্মপ্রাণ হিন্দুরা ও মায়ের উপাসকরা এই মন্দিরে ভক্তিভরে পূজা দিয়ে যান এবং তাদের মনষ্কামনা পূর্ণ করেন বলেই এই মন্দিরের খ্যাতি চারিদিকে ছড়িয়ে পড়েছে|আবার আগামী দিনে অন্য কোনো কালী তীর্থ নিয়ে বলবো অনেক অজানা কথা দেখতে থাকুন|ভালো থাকুন|ধন্যবাদ|